• সৃজা মুস্তাফি

কবিতা - কালের স্রোত



সময় পাল্টালো , অতিমারীরকালবেলায় লড়ছি সকলে।

অলংকার পাল্টালো , মুখোশহল সাথী ।

মুখোশ ত চিরকালএসেছি পরে ।

তফাত ! এখন তাদৃশ্যমান ।

সামাজিক দূরত্ব মানতে গিয়ে,

মানসিক দূরত্বর অন্ধকারসুরঙ্গে প্রবেশ করছি !

গৃহ সুরক্ষা ভাবিনা কেন !

গৃহ বন্দি ! আসামিহয়ে গেছি করোনার কাছে !


কালের চাকায় পিষ্টপরিযায়ী শ্রমিকের দিকে

অন্ধ সেজে চেয়েথাকি ।

নয়ন মেলে সাজিদৃষ্টিহীন

হাত বাড়ালে , হাতেহাত না রেখে

অন্ধের যষ্টি বাড়িয়েআঘাত করি !


এ লড়াই মানুষেরসাথে মানুষের নয় ,

প্রখর তাপে , তুষারপাতে , বাঙ্কার থেকে গোলা গুলিনা ।

এ এক অনন্যরণ । অতিমারীপ্রতিপক্ষ ।

কুসংস্কার , অমানবিকতার বিরুদ্ধে ।

একটু ভাল থাকা , ভাল রাখা ।


কাল বয়ে যায়।

আঁধার কাটিয়ে জ্বলবেবাতি ।

অন্তরের দীপশিখায় ঘুচবে অন্ধকার ।

বহ্নির লেলিহান শিখায়অজ্ঞান পুড়িয়ে ,

একে অপরের হাতেজ্ঞানের প্রদীপ দেব ।


স্তব্ধ ধরণীকে সচলকরার পথে এগিয়ে নিয়েযাব ।


---- সৃজা মুস্তাফি


( ভ্রমণ নেশা, ইঞ্জিনিয়ারিংপেশা। বইপড়া, কবিতা লেখা, ছবিতোলা, বেহালা, রবীন্দ্রসঙ্গীত শখ। দৈনন্দিনজীবনের অভিজ্ঞতার থেকে লেখার অনুপ্রেরণাপাই। )





নীড়বাসনা আষাঢ় ১৪২৮