• শুভাশিস ভট্টাচার্য

কবিতা - সাদা বাঘ কবিতার জানলায়

সাদা মানেই শান্তির প্রতীক নয় একথা মনে করিয়ে হাই তোলে সাদা বাঘ আমার জানলায় সাইবেরিয়া থেকে উড়ে আসা ক্রেন ঠাকুরানী পাহাড়ে পাথর কাটে চাইবাসায় উড়ালপুলের পেটের উনুনে অল্প আঁচে তৈরি হয় কবিতা বাবুদের সাথে ডিস্কে যাবে জকি ঘোড়া ছোটালে করিনা কাপুর খান গান গেয়ে ওঠেন 'ম্যায় তো তন্দুরি মুরগী হু ইয়ার' কোমর দুলিয়ে নেচে ওঠে রতি লাল নীল আলোর সাইকোডেলিক দুনিয়ায় গরম লোহার শিকে ঝলসানো ৩৪৬০০ আফ্রোদিতি অন্ধেরী মেট্রোলাইনের পেটের ভেতর উন্নাসিক উট আস্ত একটা মরুভূমি গিলে ফেললে বিভাজিকা জেগে থাকে উদাসীন কুঁজের মত ধারাবীতে রাস্তার মাঝে চামড়ার ঘ্রাণ মেখে রোদে শুকোয় কিছু না-মানুষ গোঁফ থেকে রক্তের গন্ধ মুছে রপ্তানির জন্য সেজে ওঠে কবিতার কোমরের বিছা চিল্কার রাস্তায় শুকনো মাছেরা বাক্সবন্দী হয়ে পাড়ি দেয় বিদেশ আমার প্রিয় শূয়র নর্দমা সাফ করে গেলে রাস্তা ঝাঁট দেবার ভঙ্গিমায় ছবি তুলে যায় নেতা ও তার পেজ থ্রির সদস্যরা ঊনচল্লিশটা লাশ নিয়ে রাজনীতির উল্লাস চলে রাতভোর গণকবরে দফন হয় কবিতা গণখবরে দফন হয় কবিতা নড়বড়ে সাঁকোয় লেগে থাকে কবিতার রক্তের গন্ধ

সাদা মানেই শান্তির প্রতীক নয় একথা মনে করিয়ে হাই তোলে সাদা বাঘ কবিতার জানলায়।

নীড়বাসনা আষাঢ় ১৪২৮