• অস্মিতা গাঙ্গুলী

কবিতা - ধর্মানুসন্ধান

ধর্মবোধের আলোয় আমার আকাশ হল লাল ধর্মবাণী, ধর্মধ্বজা - ভয়ের শাসনকাল। ধর্ম মানে, গর্জে ওঠো - অধিকার চাই, মাটি... তোমার ধর্ম সস্তা ভীষণ, আমার ধর্ম খাঁটি। ধর্ম মনে অশান্তি দেয় - ধারণ করাই ভয় মানবধর্ম, মাতৃধর্ম - মিথ্যা প্রমাণ হয়। ধর্ম মানে আমার ভাইয়ের রক্তে ভেজা হাত ধর্ম মানে সবার চোখে ঘুমতাড়ানো রাত। ধর্ম মানে সেই মা ই জানে - যার ছেলে হয় লাশ যার বুকে হয় রক্তক্ষরণ - নিভে যায় সব আশ। ধর্ম আজকে কৈশোরে এক বছর নিল কেড়ে পরীক্ষাতে যাবার পথে ধর্ম এল তেড়ে। সে ও বুঝেছে ধর্ম মানে - ঘর পুড়ে যার ছাই কাতর স্বরে বলছে যারা, 'একটু বাঁচতে চাই!' ধর্ম সেজে অধর্ম আজ করছে দাপাদাপি মানুষ মুখোশ - মনে সবাই হিংসা মালাই জপি। ধিক্কারও আজ বাক্যবিহীন - ঘৃণার মূল্য তুচ্ছ প্রয়োজন নেই দাঁড়কাকের আর মিথ্যা ময়ূরপুচ্ছ। ধর্মধারী ভক্ত সবার ষড়রিপু সাজসজ্জা মোক্ষলাভ তো এভাবেই হয়, হারায় যখন লজ্জা! ধর্মধ্বজীরা বুঝবে কবে - এ জীবন নশ্বর পথে ধূলায় গড়াগড়ি যায় সহস্র ঈশ্বর। শিশুমন তবু নির্মল হোক - এই প্রার্থনা করি জানি না তাদের বাঁচাবে কে আজ - আল্লা, যীশু না হরি!

নীড়বাসনা আষাঢ় ১৪২৮