• সঞ্জয় গায়েন

অণুগল্প - রেপ

মোবাইলটা হাতের মুঠো থেকে ছিটকে পড়ল মেঝেতে। তারপরেই বাঁচাও বলে তীব্র চিৎকার। পাশের ঘর থেকে ওর মা ছুটে আসে। এসেই দেখে বিছানায় লুটিয়ে পড়ে আছে একমাত্র মেয়ে রিয়া। চুল উস্কো-খুসকো। পরনের নাইটির হাতের কাছে ছেঁড়া। গালেও নখের আঁচড়ের দাগ। রিয়ার এ হেন রূপ দেখে খুব ভয় পেয়ে যায় মা।


রিয়া, এই রিয়া... কি হয়েছে তোর... এমন দশা কি করে হল? কাঁদো কাঁদো স্বরে বিছানায় রিয়ার মাথার পাশে বসতে যায় মা। তখনই বিরক্তি ভরে চিৎকার করে ওঠে রিয়া, তুমি এ ঘরে এলে কেন? যাও এখুনি। চলে যাও।


অ্যাই, কি বলছিস কি? তুই-ই তো বাঁচাও ব’লে ডাকলি। এসে দেখি, নাইটি ছেঁড়া। দুগালে নখের আঁচড়। এসব হল কি করে? কে করেছে এসব? আমাকে বল। রিয়ার মা আদর ভরে ওর মাথাটা কোলে তুলে নিতে যায়।


কিন্তু রিয়া ঠেলে সরিয়ে দেয়। বলে, আমার কিচ্ছু হয় নি। তুমি এখন যাও তো। আমার টাইম এখুনি শুরু হবে। বলেই রিয়া মেঝে থেকে ফোনটা তুলে নেয়।


ওর মা কিছু বুঝতে না পেরে উঠে দাঁড়ায়। মনে মনে ঠিক করে ওর বাবাকে ডাকবে। রিয়া ওর বাবাকে ছাড়া কাউকে ভয় পায় না। হঠাৎ কি ভেবে রিয়ার হাত থেকে ওর মোবাইলটা ছিনিয়ে নেয়। দেখে, গেম খেলছিল মেয়ে। গেমটির নাম রেপ গেম।

নীড়বাসনা আষাঢ় ১৪২৮