• দেবযানী গাঙ্গুলী

মুক্তগদ্য - হাওয়ার সখ্য

সারাটা দিনের সমস্ত দান প্রতিদান আর কথোপকথন শেষ হলে বিকেলটুকুতে নিজেকে আকাশের নীলে মেলে ধরে চারুলতা। বুকের গহন ঘরের দরজা খুলে অনাবিল খোলা হাওয়ায় অবগাহনের সুখে ভেসে যায়। চৌকাঠে বন্দী সমস্ত পিছুটানকে নিদারুণ অবহেলার এটাই সেরা সময়। নিঃশব্দের একলা কথাগুলো দামাল হাওয়ার স্রোতে ভেসে যায় ঠিকানাহীন আসন্ন সন্ধ্যার নিরাবয়বে। তখনো গোধূলি আলোর মুঠোখানেক আদর ছড়িয়ে থাকে দিগন্তে। দুই হাত বাড়িয়ে সেই আলোকে সর্বাঙ্গে মাখে চারুলতা। হাওয়া এসে দুষ্টুমি করে গাল ছুঁয়ে, ভাসিয়ে নিয়ে যায় অদৃশ্য অদেখা কোন্ মায়ার টানে, দূর অরণ্যলোকে।


ছোটবেলার দিনগুলোতে পাল তোলা কিশোর-হাওয়ার সাথে চারুর খেলার সময়টা আরো বিস্তৃত ছিল। ভোরের আলোয় ভিজে ঘাসে পা দিয়েই যখন সমস্ত শরীরে ভালোলাগা ছড়িয়ে পড়ত, দু'একটা কমলা ফড়িং যখন হাওয়ার তালে স্বচ্ছ ডানা মেলে সঙ্গে সঙ্গে উড়ত -- সেই রোদেলা হাওয়া চারুর কানে গেয়ে যেত জন ডেনভারের সুর - ' Sunshine on my shoulders makes me happy ...'

সুরেলা হাওয়া নতুন আলোর সাথে মেখে চারুর কানে শুনিয়ে যেত সবার মাঝে থেকেও আপনমনে হারিয়ে যাবার জাদুমন্ত্র। এই হাওয়া মেখেই চারুলতা নিজের ধুলো মাটির অস্তিত্বকে চিনেছিল, শিখেছিল আপনছন্দে পত্রময় হতে। আরণ্যক হাওয়াই ওকে দিয়েছে শূন্যতাকে পূর্ণতায় রূপান্তরের দীক্ষা। সীমার মাঝে অসীমের অনুরণন ...শিকড়টুকুকে দৃঢ় করে ঋজু অরণ্যের সবুজে চারু গানে গানে হারিয়ে গেছে বারবার। হাওয়া অরণ্যের কাছে বয়ে নিয়ে গেছে তার ভালবাসার পত্রালি।


তারপর দিনগুলো বড় দ্রুত চলে গ্যাছে হাওয়া-গাড়ি চেপে। রুগ্ন ফুসফুস আর বুক ভরে সবটুকু হাওয়াও টেনে নিতে পারে না। চারুলতা মনে মনে ভাবে, সে সাগর হতে চেয়ে কত কত নোনাজল বুকের অসীমে জমিয়েছে হাওয়াকে তো সেকথা বলা হল না!! ঠিক তখনই কালি পরা চোখের কোলে আলতো হাত বুলিয়ে একটুকরো মিষ্টি হাওয়া বলে যায় -


"দূরের পথিক! তুমি ভাবো বুঝি তব ব্যথা কেউ বোঝে না!

তোমার ব্যথার তুমিই দরদী একাকী? "


অবাক লাগে চারুর, এই লাইনগুলোই তো সে কোনো এক ক্লাসে পাঠ্যবইতে পড়েছে। হাওয়াও বুঝি তারই সাথে পড়েছিল স্কুলের পাঠ!!! আপন আপন গন্ধমাখা হাওয়ার সাথে মনে মনে গল্প করে চারুলতা। বলে, "এই পড়ন্তবেলায় মিষ্টি করে একটা গান শোনাবি?" ওর ডাকে উৎসাহী হাওয়া পাক খেয়ে ওঠে, অস্থির হয়ে ব্যালকনির রেলিং ধরে উঠে দাঁড়ায় চারু.... তারপর দহন ক্লান্ত শরীরে অবগাহনের সুখে শোনে দূর বনানী থেকে ভেসে আসা হাওয়ার গান --


' If I had a tale that I could tell you

I'd tell a tale sure to make you smile

If I...."


লেখক পরিচিতি - দেবযানী গাঙ্গুলী পেশায় শিক্ষিকা। নেশা সাহিত্য চর্চা। মূলত কবিতার ভাবরসে ডুবে থাকলেও গল্প এবং ব্যক্তিগত গদ্য লেখেন।


নীড়বাসনা আষাঢ় ১৪২৮